গজারিয়ায় বিয়ের পর পূর্ব প্রেমিক ও ইভটিজিংয়ের ঘটনায় যুবক গুলিবিদ্ধ

তুষার আহাম্মেদঃ

মুন্সীগঞ্জে গজারিয়া উপজেলার হোসেন্দী ইউনিয়নে আশ্রাফদী গ্রামে পূর্ব প্রেম ও ইভটিজিংয়ের ঘটনার জের ধরে প্রতিপক্ষের হাতে সোহাগ বাবু (২৮) নামের এক যুবককে গুলিবিদ্ধ করে আহত করার অভিযোগ উঠেছে।

স্থানীয় সূত্র জানা যায় একই গ্রামের আব্দুল করিমের ছেলে বাবু ওরফে (করিম বাবু) ও খোরশেদ আলম খসরু ছেলে রাসেল মিয়া গত (২৯ এপ্রিল) বৃহস্পতিবার রাতে বাবুল সরকারের ছেলে সোহাগ বাবুকে ডেকে নিয়ে পায়ে গুলি করে আহত করে।
ডান পায়ের হাটুর নীচে গুলিবিদ্ধ বাবুকে গুরুতর জখম অবস্থায় গজারিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।দায়িত্বরত চিকিৎসক জানিয়েছে বাবুকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে পরবর্তি চিকিৎসা চলছে অবস্থা এখন স্থিতিশীল রয়েছে।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায় গুলিবিদ্ধ সোহাগ বাবু হোসেন্দী ইউনিয়ন পরিষদের ০৪ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক মেম্বার বাবুল সরকারের ছেলে।
ঘটনার বিবরনে জানা যায় ওই এলাকার কলেজ পড়ুয়া মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল বাবুল সরকারে’র ছেলে সোগাহ বাবু’র।সম্প্রতি সময়ে মেয়েটির অন্যত্র বিয়ে হয়ে যায়।বিয়ের পরও সোহাগ সুযোগ পেলেই উত্যক্ত করছিল। এমন অভিযোগে গত বৃহস্পতিবার রাতে স্থানীয় মসজিদে নামাজ আদায় শেষে বাড়ি ফেরার পথে রাসেল মিয়া ও তার সহযোগী বাবু (করিম) ভিকটিম সোহাগ বাবু’কে ডেকে নিয়ে পায়ে গুলি করে জোড়পূর্বক উঠিয়ে নিয়ে গুম করার পায়তারা চালায়।
সে সময় আহত সোহাগের চিৎকারে অন্যরা এসে তাকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে।
এ বিষয়ে গজারিয়া থানার কর্তব্যরত অফিসার এস.আই আনিসুর রহমান অভিযোগ প্রাপ্তির কথা স্বীকার করে বলেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে,তদন্ত চলছে।তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবে প্রশাসন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.